গোপালগঞ্জে জেএসসির ফরম পূরণে অতিরিক্ত ফি আদায়ের অভিযোগ

প্রকাশিতঃ ৬:১৮ অপরাহ্ণ, বৃহঃ, ৩১ অক্টোবর ১৯

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি: পরীক্ষারর্থীদের ফরম পূরণ বাবদ ফি আদায়ের সময় অন্য কোনো ফি আদায় করা যাবে না। সরকারি এমন নির্দেশনা থাকলেও তা অমান্য করেই রসিদ দেওয়া ছাড়াই গোপালগঞ্জ সদর উপজেলার চন্দ্রদিঘলিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে জেএসসি পরীক্ষার ফরম পূরণে অতিরিক্ত ফি আদায় এর অভিযোগ উঠেছে ওই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষকদের বিরুদ্ধে।

শুধু তাই নয় প্রবেশপত্র বাবদ এ অর্থ আদায়ের অভিযোগ রয়েছে। পরীক্ষার ফরম পূরণের ফি’র সঙ্গে বিশেষ ক্লাস/অতিরিক্ত ক্লাশ সহ বিভিন্ন খাত দেখিয়ে কৌশলে অর্থ আদায় করে নিয়েছে বলে দাবি জেএসসি পরীক্ষার্থীদের।

জানা যায়, পরীক্ষার ফরম পূরণের নামে অর্থ আদায়ের ক্ষেত্রে কোনো ধরনের রসিদ স্কুল কর্তৃপক্ষ দিচ্ছে না। স্কুল কর্তৃপক্ষের এমন আচরণে গত সোমবার সকালে বিদ্যালয়ের সামনে পরীক্ষার্থীদের বিক্ষোভ করতে দেখা গেছে। এক পর্যায়ে পরীক্ষার্থীদের এ আন্দোলন বন্ধ করতে স্কুল কর্তৃপক্ষ ২ শত টাকা ফেরত দেওয়ার কথা বলে আন্দোলন শিথিল করে।

এ ব্যাপারে জেএসসি পরীক্ষার্থী মামুন ভুইয়ার বাবা মফিজ ভুইয়া স্কুলে অতিরিক্ত অর্থ আদায়ের সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বোর্ড ও দুদকের নির্দেশনা উপেক্ষা করে এ স্কুলে বাড়তি টাকা আদায় চলছে।

পরীক্ষার্থী তারিনা রহমান বলেন, আমাদের স্কুলের সহকারি শিক্ষক গোলাম রাসুল ভুইয়া স্বজনপ্রীতি করেন, ওনার পছন্দের ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য বেশী সুযোগ সুবিধা থাকে। আর স্কুলে কোচিং না করলে তাদের সাথে খারাপ ব্যবহার করেন। স্কুলের ভিতরে স্যারের বাবার কিছু সম্পত্তি রয়েছে বলে তিনি যা খুশি তা আচরণ করেন।

এ সম্পর্কে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক অহিদুজ্জামান ভুইয়া বলেন, বোর্ড নির্ধারিত ফিসের বাইরে কিছু খরচ আছে সেজন্য কিছু টাকা নিতে হয়।

তিনি আরো বলেন, ফরম পূরণ শেষ হওয়ার পরে প্রত্যেককে টাকা আদায়ের রসিদ দেয়া হয়, তবে কেউ কেউ নাও পেতে পারে। তার স্কুলে বোর্ডের নির্ধারিত টাকার বাইরে অতিরিক্ত কোনো আর্থ আদায় করা হয়নি বলেও তিনি দাবি করেন।

এ ব্যাপারে জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা খাইরুল আনাম মো. আফতাবুর রহমান হেলালী-এর অফিসে গিয়ে তাকে না পেয়ে মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, বর্তমানে আমি দাপ্তরিক কাজে ঢাকায় আছি। এ ব্যাপারে কোন অভিযোগ পেলে সুষ্ঠু তদন্ত পূর্বক আইনানুগ ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ