ট্রাম্পের দাবি : ইরানের হামলায় হতাহত নেই, ক্ষতি সামান্য

প্রকাশিতঃ ১০:৩০ পূর্বাহ্ণ, বৃহঃ, ৯ জানুয়ারি ২০

যুক্তরাষ্ট্রের দু’টি বিমানঘাঁটিতে ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় হতাহতের কোনো ঘটনা ঘটেনি বলে দাবি করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তাঁর ভাষায়, ‘আমাদের কেউ হতাহত হয়নি। আমাদের সব সৈন্য নিরাপদে আছে এবং আমাদের সামরিক ঘাঁটিগুলোতে খুব সামান্যই ক্ষতি হয়েছে।’ স্থানীয় সময় বুধবার সকালে জাতির উদ্দেশ্যে দেওয়া এক ভাষণে এই দাবি করেন ট্রাম্প। ‍তথ্য সূত্র: সিএনএন।

উল্লেখ্য, ইরানের রেভল্যুশনারি গার্ডের অভিজাত কুদস ফোর্সের কমান্ডার কাসেম সোলাইমানি মার্কিন ড্রোন হামলায় নিহত হওয়ার পর দেশটির সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ আলি খামেনি পরমাণু চুক্তি থেকে সরে গিয়ে পুনরায় এই কর্মসূচি চালুর ঘোষণা দেন। এ প্রসঙ্গে ডোনাল্ড ট্রাম্প তার ভাষণে বলেছেন, ‘আমি যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট থাকা অবস্থায় ইরান কখনোই পারমাণবিক বোমা তৈরির সুযোগ পাবে না।’

এ সময় ইরানের বিরুদ্ধে জোটবদ্ধ হতে রাশিয়া ও চীনসহ বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশগুলোকে যুক্তরাষ্ট্রের পাশে থাকার আহ্বান জানান ট্রাম্প।

মার্কিন সামরিক বাহিনী ‘যে কোনো পরিস্থিতির জন্য তৈরি রয়েছে’ জানিয়ে তিনি বলেন, তবে মনে হচ্ছে ইরান পিছু হটছে।

তিনি বলেন, ইরান পিছু হটছে বলেই মনে হচ্ছে, যা সংশ্লিষ্ট সব পক্ষের জন্যই একটি ভালো ব্যাপার এবং এটা বিশ্বের জন্য খুবই ভালো।’

স্থানীয় সময় মঙ্গলবার গভীর রাতে ইরাকের দু’টি মার্কিন বিমানঘাঁটিতে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় ইরান। ইরানের কুদস বাহিনীর প্রধান কাসেম সোলাইমানিকে হত্যার প্রতিশোধ নিতে এই হামলা চালানো হয় বলে ইরানের রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনের খবরে বলা হয়। এ ছাড়া ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় অন্তত ৮০ মার্কিন সেনা নিহতের দাবিও করা হয় ইরানের। তবে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প জাতির উদ্দেশ্যে দেওয়া ভাষণে সেই দাবি প্রত্যাখান করলেন।

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ