ঢাকায় পৌঁছেছে চীনের পাঠানো মেডিকেল সরঞ্জাম

প্রকাশিতঃ ৬:৪৪ অপরাহ্ণ, বৃহঃ, ২৬ মার্চ ২০

সময় জার্নাল ডেস্ক : চীনের কুনমিং থেকে দশ হাজার টেস্টিং কিট, দশ হাজার পারসোনাল প্রোটেকটিভ ইকুইপমেন্ট (পিপিই) এবং এক হাজার ইনফ্রারেড থার্মোমিটারসহ মেডিকেল সরঞ্জামের দ্বিতীয় চালানটি দেশে এসে পৌঁছেছে।

বৃহস্পতিবার (২৬ মার্চ) বিকেলে চীন সরকারের একটি বিশেষ বিমানে করে কোভিড-১৯ মোকাবিলার জন্য চিকিৎসার সরঞ্জাম ঢাকায় পৌঁছায়।

শহাজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের মেডিকেল বিভাগের প্রধান ডা. মোহাম্মদ শাহরিয়ার সাজ্জাদ জানান, বিকেল ৪টা ১৭ মিনিটে চীন থেকৈ আসা ফ্লাইটটি ঢাকায় অবতরণ করে। এতে টেস্টিং কিট, পিপিই, ইনফ্রারেড থার্মোমিটার ছাড়া রয়েছে ১০ হাজার সার্জিক্যাল মাস্ক এবং ১০ হাজার মাস্ক।

বাংলাদেশে নিযুক্ত চীনা রাষ্ট্রদূত লি জিমিং এবং বাংলাদেশ সরকারে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা বিমানবন্দরে উপস্থিত ছিলেন।

চীন সম্প্রতি করোনাভাইরাস মোকাবিলার জন্য বাংলাদেশকে বিপুল সংখ্যক টেস্টিং কিটসহ জরুরি চিকিৎসা সরঞ্জাম সরবরাহ করার ঘোষণা দেয়।

বাংলাদেশকে দেয়া চীনের জরুরি মানবিক সাহায্য প্রকল্পের মধ্যে রয়েছে ১০ হাজার মানুষের জন্য করোনাভাইরাস পরীক্ষার কিট, ১৫ হাজার সার্জিক্যাল এন৯৫ মাস্ক, ১০ হাজার সুরক্ষা পোশাক ও ১ হাজার ইনফ্রারেড থার্মোমিটার।

এদিকে করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের জন্য আলিবাবা গ্রুপের সহ-প্রতিষ্ঠাতা ও সাবেক নির্বাহী চেয়ারম্যান জ্যাক মা এর দেয়া মেডিকেল সরঞ্জাম দুটি বিশেষ বিমানে করে শিগগিরই দেশে আসবে।

প্রথম ফ্লাইটটি ২৮ মার্চ চ্যাংশা থেকে আসবে যাতে ৩০ হাজার করোনাভাইরাস টেস্টিং রিজেন্ট থাকবে

দ্বিতীয় ফ্লাইটটি একই দিনে নিংবো থেকে যাত্রা করবে এবং এতে ৩ লাখ মাস্ক থাকবে যার মধ্যে ৩০ হাজার এন৯৫ মেডিকেল মাস্ক এবং ২ লাখ ৭০ হাজার একক ব্যবহারের সার্জিকেল মাস্ক রয়েছে।

সময় জার্নাল/

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ