দিন শেষে স্বস্তিতে বাংলাদেশ

প্রকাশিতঃ ৮:১৫ অপরাহ্ণ, শনি, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০

স্পোর্টস ডেস্ক : নাঈম হাসানের ঘূর্ণিতে ৬ উইকেট হারিয়ে ২২৮ রানে প্রথম দিন শেষ করলো সফরকারী জিম্বাবুয়ে। জিম্বাবুয়ের পক্ষে অধিনায়ক ক্রেগ এরভিন ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় সেঞ্চুরি পূর্ণ করেন। আর প্রিন্স মাসবুরের ব্যাট থেকে আসে ৬৪ রান। বল হাতে নাঈম হাসান ৪টি ও আবু জায়েদ রাহী নেন ২টি উইকেট।

টস জিতে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই বিপর্যয়ে পড়ে সফরকারীরা। দলীয় ৭ রানের মাথায় ব্যক্তিগত ২ রান করেই রাহীর শিকার হয়ে সাজঘরে ফেরেন ওপেনিংয়ে নামা কেভিন কাসুজা। কাসুজার আউটের পর স্বপ্ন দেখতে থাকা বাংলাদেশের বোলারদের ঘাম ঝরাতে থাকেন মাসবুরে-এরভিন জুটি। বাংলাদেশের সামনে বড় সংগ্রহের দিকে এগিয়ে যেতে থাকে সফরকারীরা।

১১১ রানের অনবদ্য জুটির পর নাঈম হাসানের বলে কট অ্যান্ড বোল্ড হয়ে প্যাভিলিয়নের পথ ধরতে হয় উদ্বোধনী জুটিতে নামা প্রিন্স মাসবুরেকে।এরপর অধিনায়ক এরভিন একপ্রান্ত আগলে রাখলেও অন্যপ্রান্তে কাউকেই দাঁড়াতে দেয়নি বাংলাদেশী বোলাররা।

এরপর নাঈম হাসানের দ্বিতীয়, তৃতীয় ও চতুর্থ শিকার হয়ে সাজঘরে ফিরতে হয় ব্রেনড্যান টেইলর, সিকান্দার রাজা ও অধিনায়ক ক্রেগ এরভিনকে। প্রথম দিন শেষে চাকাবা ৯ রানে অপরাজিত থাকলেও রানের খাতায় খুলতে পারেননি তিরিপানো।

নাঈম হাসান ৩৬ ওভারে ৮ মেডেন নিয়ে ৬৮ রান দিয়ে শিকার করেন ৪ উইকেট। আবু জায়েদ রাহী ১৬ ওভারে ৪ মেডেন নিয়ে ৫১ রান দিয়ে নেন ২টি উইকেট। তবে নাঈম ও রাহীর সাফল্যের দিনে মলিন ছিলো বাংলাদেশের অভিজ্ঞ বোলার তাইজুল ইসলাম। ২১ ওভারে ৭৫ রান দিয়ে কোন উইকেট শিকার করতে পারেননি তিনি।

সময় জার্নাল/

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ