‘ভারতে শিক্ষার্থীদের চেয়ে গরুর নিরাপত্তা বেশি’

প্রকাশিতঃ ৫:৩৩ অপরাহ্ণ, বুধ, ৮ জানুয়ারি ২০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ভারতের জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ে হামলার ঘটনায় অন্যদের মতো মোদি সরকারের বিরুদ্ধে ফুঁসে উঠছে বলিউড তারকারাও। এবার সে তালিকায় যুক্ত হলেন অভিনেতী ও লেখিকা টুইঙ্কেল খান্না।

মোদি সরকারকে একহাত নিয়ে টুইঙ্কেল খান্না বললেন, ‘এই হল ভারত, যেখানে পড়ুয়াদের থেকে গরুদের নিরাপত্তা বেশি। আবার এটাই আমাদের ভারত যা মাথা নত করতে জানে না। হিংসার আশ্রয় নিয়ে মানুষের মুখ বন্ধ করা যাবে না। এতে আরও বেশি করে প্রতিবাদের ঝড় উঠবে, আরও বেশি বনধ হবে, আরও বেশি করে মানুষ রাস্তায় নামবে।।’

গত ৬ জানুয়ারীভারতের রাজধানী দিল্লীর জওহরলাল নেহেরু বিশ্ববিদ্যালয়ে হামলা চালায় মুখোশধারী একদল সন্ত্রাসী। এ হামালায় শিক্ষক-শিক্ষার্থীসহ ৩৪ জন আহত হয়েছেন। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি জানায়, আহত শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়ছে। তবে এ ঘটনায় এখনো কাউকে আটক করা হয়নি।

শিক্ষার্থীদের অভিযোগ, ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপি’র সমর্থিত ডানপন্থী দল আখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদের যোগসাজশে এই হামলা চালানো হয়েছে।

সম্প্রতি অভিযুক্ত ওই ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদের গেরুয়া ঝাণ্ডা হাতে একটি ছবি ভাইরাল হয়েছে অক্ষয় কুমারের। সে ছবি নিয়েই কথা বলছে অনেকেই। সে কথার জবাব দিতেই খিলাড়ি কুমার ঘরণি টুইংকেল আওয়াজ তুললেন বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়ুয়াদের উপর লাঠিচার্জের বিরুদ্ধে।

প্রতিবাদের জেরে আবার টুইঙ্কেল অনেকে ব্যঙ্গও করেছেন। বলেছেন, ‘আপনার স্বামীই তো অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদের গেরুয়া ঝাণ্ডা হাতে ঘুরছেন। আর আপনি কি না তার বৈপরীত্য করে মোদির সমালোচনা করছেন! অনেকে আবার অক্ষয়কে কটাক্ষ করে বলেছেন, টুইঙ্কেল আপনি মুখ খুলেছেন, আপনার স্বামীর তো জাতীয় পুরস্কারের খাতা থেকে বাদ যাবে!

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ