মালয়েশিয়ায় প্রথম নারী প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন ড. আজিজা

প্রকাশিতঃ ২:৩৩ অপরাহ্ণ, সোম, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: উপপ্রধানমন্ত্রী ড. ওয়ান আজিজা ওয়ান ইসমাইল মালয়েশিয়ার প্রথম নারী প্রধানমন্ত্রী হতে পারেন। প্রধানমন্ত্রী ড. মাহাথির মোহাম্মদ সোমবার পদত্যাগ করার পর তাকে প্রধানমন্ত্রী করার বিষয় আলোচনায় উঠে এসেছে।

বিরোধী দলগুলোকে নিয়ে পর্দার আড়ালে একটি সরকার গঠনের চেষ্টা ব্যর্থ হলে পদত্যাগ করেন মাহাথির। একটি সূত্র মালয় মেইলকে জানিয়েছেন, অন্তর্বর্তী প্রধানমন্ত্রী হিসেবে ড. ওয়ান আজিজা ওয়ান ইসমাইলকে মনোনীত করেছেন ড. মাহাথির। ক্ষমতাসীন পাকাতান হারাপান প্রশাসন থেকে মাহাথিরের নিজের দল পার্তি প্রিভূমি বারসাতু মালয়েশিয়া (বারসাতু) সরে যাওয়ার পর তিনি এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বলে ওই সূত্রটি জানিয়েছে।

উল্লেখ্য, ড. আজিজা মালয়েশিয়ার সাবেক উপপ্রধানমন্ত্রী আনোয়ার ইব্রাহিমের স্ত্রী।

পিকেআর দলের প্রেসিডেন্ট এখন আনোয়ার ইব্রাহিম। তার ঘনিষ্ঠ একটি সূত্রের কাছে জানতে চাওয়া হয়, ড. মাহাথিরের পদে আজিজাকে বসানো হবে কিনা। জবাবে ওই সূত্রটি বলেছেন, ওয়ান আজিজা হলেন অন্তর্বর্তী প্রধানমন্ত্রী।

একই সূত্র বলেছেন, পিকেআর দলের ডেপুটি প্রেসিডেন্ট ও অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিষয়ক মন্ত্রী সেরি আজমিন আলী এবং তার ডান হাত বলে পরিচিত গৃহায়ণ ও স্থানীয় সরকার বিষয়ক মন্ত্রী জুরাইদা কামারুদ্দিনকে দল থেকে বরখাস্ত করা হয়েছে।

ফেসবুকে আলাদা এক পোস্টে পার্তি প্রিভূমি বারসাতু মালয়েশিয়া (বারসাতু) বা পিপিবিএম দলের সভাপতি মুহিদ্দিন ইয়াসিন বলেছেন, তার দল ক্ষমতাসীন জোট থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এ জন্য ২৩ শে ফেব্রুয়ারি দলের শীর্ষ নেতৃত্বের একটি বিশেষ বৈঠক হয়। সেখানে সিদ্ধান্ত হয় ক্ষমতাসীন পাকাতান হারাপান ত্যাগ করবে দল।

তিনি আরো বলেছেন, পিপিবিএম দলের সব সদস্য পার্লামেন্টে পাকাতান হারাপান ত্যাগ করেছেন। তারা সবাই মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী ড. মাহাথির মোহাম্মদকে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে সমর্থন করে একটি ঘোষণায় স্বাক্ষর করেছেন।

সূত্র: মালয় মেইল

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ