মোড়লগঞ্জে ১০ টাকা কেজির চাল বিতরণে অনিয়মের অভিযোগ

প্রকাশিতঃ ৬:১২ অপরাহ্ণ, বুধ, ২৫ মার্চ ২০

এম.পলাশ শরীফ, বাগেরহাট : জেলার মোড়লগঞ্জ উপজেলায় খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির আওতায় হতদরিদ্রদের মাঝে ১০ টাকা কেজি জনপ্রতি ৩০ কেজি চাল বিতরণে অনিয়মের অভিযোগ তুলেছেন কার্ডধারীরা। প্রতি বস্তায় অতিরিক্ত ২০ টাকা আদায় করা হয়েছে।

বুধবার দুপুরে মোড়েলগঞ্জের বহরবুনিয়া ইউনিয়নের ফুলহাতা বাজার চাল বিক্রেতা ডিলার রফিকুল ইসলাম, কলেজ বাজারে শাহাজামাল পারভেজ ও ঘষিয়াখালী বাজারের উজ্জল ফকির কার্ডধারীদের নিকট থেকে অতিরিক্ত টাকা আদায় করে। এসময় স্থানীয়দের প্রতিবাদে তোপের মুখে পড়ে ডিলাররা।

একইদিনে খাউলিয়া ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডে চাল বিতরণকালে ডিলার শেখ কামাল উদ্দিনের বিরুদ্ধে সুবিধাভোগীরা অভিযোগ তুলেছেন কার্ডধারী অনেকের নাম পরিবর্তন করা হয়েছে। চাল আনতে গেলে ডিলার জানান, তাদের নাম নেই। তাদের দীর্ঘক্ষণ দাড়িয়ে থেকে বাড়ি যেতে হচ্ছে খালি হাতে।

কার্ডধারী চালিতাবুনিয়া গ্রামের নজরুল আকন (৬০), খাউলিয়া গ্রামের আছিয়া খাতুন(৫২), মহারাজ শেখ(৪৮), সালেহা বেগমসহ (৫১) অনেকেই ক্ষোভের সাথে সাংবাদিকদের জানান, বিগত ২ বছর ধরে তারা চাল পেয়েছে। হঠাৎ করে তাদের নাম কেটে দিয়েছেন চেয়ারম্যান-মেম্বাররা। স্থানীয়ভাবে চেয়ারম্যানের প্রতিদ্বন্দী প্রার্থীর গ্রুপ করেছেন তারা। তাই তাদের নাম কেটে দেওয়া হয়েছে।

এসব অনিয়মের ঘটনা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. কামরুজ্জামান জানতে পেরে তাৎক্ষনিক ডিলারদের চাল বিতরণ বন্ধ করার নির্দেশ দেন।

এবিষয়ে মোড়েলগঞ্জ উপজেলা খাদ্যগুদাম ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. রফিকুল ইসলাম বলেন, চাল বিতরণে ডিলারদের অনিয়মের বিষয়টি তিনি শুনেছেন। তাৎক্ষনিক উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার নির্দেশে আপাতত বন্ধ রাখা হয়েছে। উর্দ্ধতন কর্মকর্তাদের পরবর্তীতে নির্দেশনা অনুযায়ী চাল বিতরণ করা হবে।

এবিষয়ে খাউলিয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মাষ্টার আবুল খায়ের বলেন, স্থানীয় রাজনৈতিক গ্রুপের বিষয় নয়। কে কোন গ্রুপ কেরেছে সেটা কখনও দেখা হয়নি। সরকারি নিয়ম অনুযায়ী হতদরিদ্র সুবিধাভোগীরা সরকারের একাধিক সুবিধা ভোগ করতে পারবে না।

সময় জার্নাল/

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ