সাকিবের জন্য ফুল নিয়ে মাঠে ঢুকে পড়লেন এক সমর্থক

প্রকাশিতঃ ১২:১১ অপরাহ্ণ, শুক্র, ৬ সেপ্টেম্বর ১৯

প্যাভিলিয়ন প্রান্ত থেকে টানা বোলিং করে যাচ্ছিলেন তাইজুল ইসলাম। দিনের প্রথম দশ ওভার তাকে সঙ্গ দিলেন মেহেদি হাসান মিরাজ। ইনিংসের ১০৭ ও দিনের ১১তম ওভারে প্রথমবারের মতো আক্রমণে আসেন অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। আর তখনই ঘটে গেলো অনাকাঙ্খিত এক ঘটনা।

প্রতিপক্ষ অধিনায়ক রশিদ খানকে আউট করার পরিকল্পনা নিয়ে ওভারের তিনটি বল করেন সাকিব। এরপরই থেমে যেতে হয় তাকে। কেননা ইস্টার্ন গ্যালারির কাঁটাতারের বেড়া টপকে মাঠের মধ্যে ঢুকে যান এক দর্শক। তবে তিনি কোনো ক্ষতিকর কোনো কিছু করেননি।

বরং টাইগার অধিনায়ক সাকিব আল হাসানের জন্য ভালোবাসার উপহার হিসেবে ছোট্ট একটি ফুলের তোড়া হাতে নিয়েই মাঠে প্রবেশ করেন তিনি। সাকিব তখন চতুর্থ বল করার জন্য প্রস্তুত হচ্ছিলেন; কিন্তু তাকে থেমে যেতে হয় অনাকাংখিত অতিথির আগমনে।

উইকেটের কাছাকাছি এসে হাঁটু গেড়ে সাকিবকে ভালোবাসা জানান ওই সমর্থক। এরপর হাত মিলিয়ে শ্রদ্ধা জানিয়ে স্যালুটও দেন এ তিনি। তখনও হুশ আসেনি নিরাপত্তা কর্মীদের। ঘটনার প্রায় ২৫-৩০ সেকেন্ড পর গ্র্যান্ডস্ট্যান্ড থেকে দৌড়ে আসেন দুই নিরাপত্তাকর্মী এবং টেনে হিঁচড়ে বের করে দেন সেই সমর্থককে।

ওই ওভারে উইকেট পাননি সাকিব। তবে পরের ওভারেই কাইস আহমেদকে আউট করে চলতি ম্যাচে উইকেটের খাতা খোলেন টাইগার অধিনায়ক।

সাকিবের জন্য ফুল নিয়ে মাঠে ঢুকে পড়লেন এক সমর্থক

জানা গেছে চট্টগ্রাম শহরের এনায়েতবাজার এলাকার বাসিন্দা ফয়সাল নামের ২২ বছর বয়সী এ যুবক। তার মাঠে ঢুকে পড়ার বিষয়টি ছিলো পুরোটাই পূর্বপরিকল্পিত।

যুবকের কাছ থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী, স্টেডিয়ামের দুই নম্বর গেট দিয়ে সে মাঠে প্রবেশ করে এবং অপেক্ষায় ছিলো সাকিবের বোলিংয়ে আসার জন্য। পরে ১০৭তম ওভারে সাকিব আসতেই কাঁটাতারের বেড়া টপকে ঢুকে পড়েন মাঠে।

এদিকে বিসিবির নিরাপত্তাকর্মীরা তাকে তুলে দিয়েছে পাহাড়তলি থানা পুলিশের হাতে। সেখানে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের পর পরবর্তী পদক্ষেপ নেবে পুলিশ। কিন্তু প্রশ্ন উঠেছে, নিরাপত্তা বেষ্টনি ভেদ করে কিভাবে মাঠের মধ্যে ঢুকে পড়লো এই সমর্থক?

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ