স্ত্রীকে সাথে নিয়েই নির্বাচনে লড়ছে ক্যাসিনো সাঈদ

প্রকাশিতঃ ৪:৪৮ অপরাহ্ণ, শুক্র, ১০ জানুয়ারি ২০

নিউজ ডেস্ক: ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন ‘ক্যাসিনো সাঈদ’ হিসেবে খ্যাত এ কে এম মমিনুল হক সাঈদ। তিনি ডিএসসিসি’র নয় নম্বর ওয়ার্ড থেকে কাউন্সিলর পদে নির্বাচন করবেন। একই সঙ্গে তার স্ত্রী ফারহানা আহম্মেদ বৈশাখীও কাউন্সিলর পদে নির্বাচন করছেন।

শুক্রবার (১০ জানুয়ারি) সকালে গোপীবাগের সাদেক হোসেন খোকা কমিউনিটি সেন্টারে অবস্থিত ডিএসসিসি নির্বাচনের রির্টানিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে সাঈদ ও তার স্ত্রী প্রতীক বরাদ্দ পাওয়ায় এ তথ্য নিশ্চিত হওয়া গেছে।

এ কে এম মমিনুল হক সাঈদকে লাটিম প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। তার কাঙ্ক্ষিত প্রতীক ছিল ঠেলাগাড়ি। তবে প্রতীক বরাদ্দের সময় সাঈদ রির্টানিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে উপস্থিত ছিলেন না। তার পক্ষে রাশেদুল হক নামে একব্যক্তি স্বাক্ষর করেছেন। সাঈদ ঠেলাগাড়ি প্রতীক না পেলেও তার স্ত্রী ফারহানা আহম্মেদ বৈশাখী ওই প্রতীক বরাদ্দ পেয়েছেন। তিনি নিজে উপস্থিত থেকে প্রতীক বুঝে নিয়েছেন।

২০১৫ সালে অনুষ্ঠিত সর্বশেষ ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) নির্বাচনে আওয়ামী লীগের সমর্থন নিয়ে প্রথমবারের কাউন্সিলর পদে নির্বাচিত হন এ কে এম মমিনুল হক সাঈদ। গত বছরের ১৮ সেপ্টেম্বর থেকে প্রধানমন্ত্রী ঘোষিত শুদ্ধি অভিযান শুরু হওয়ার পর রাজধানীর ক্যাসিনো ব্যবসার সঙ্গে সাঈদ সংশ্লিষ্টতা মেলে। সে সময় তিনি জাতীয় হকি দলের সঙ্গে মালয়েশিয়ায় অবস্থান করছিলেন। গ্রেফতার এড়াতে তিনি সেখানেই ছিলেন। এরই মধ্যে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন তাকে কাউন্সিলর পদ থেকে অপসারণ করেন। শুদ্ধি অভিযান ঝিমিয়ে পড়ার কারণে লোকচক্ষুর আড়ালে গত ২৬ ডিসেম্বর তিনি দেশে ফেরেন।

এর আগে গত ২৯ ডিসেম্বর আওয়ামী লীগ থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে জানানো হয়, ডিএসসিসি নির্বাচনের সাঈদের ওয়ার্ডে তার পরিবর্তে দলের সমর্থিত কাউন্সিলর প্রার্থী হিসেবে ৯ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি মোজাম্মেল হকের নাম ঘোষণা করা হয়। যিনি শুক্রবার নির্বাচনী প্রতীক হিসেবে ঘুড়ি পেয়েছেন।

আগামী ৩০ জানুয়ারি ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) ও ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি) নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ