হত্যা মামলায় সাত দিনের রিমান্ডে খালেদ

প্রকাশিতঃ ৭:০৩ অপরাহ্ণ, বুধ, ২৩ অক্টোবর ১৯

নিউজ ডেস্ক: রাজধানীর খিলগাঁও থানার একটি হত্যা মামলায় ঢাকা মহানগর দক্ষিণ যুবলীগের বহিষ্কৃত সাংগঠনিক সম্পাদক খালেদ মাহমুদ ভূঁইয়ার সাতদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।

আজ বুধবার (২৩ অক্টোবর) তাকে ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করে পুলিশ। এসময় খিলগাঁও থানায় দায়ের হওয়া একটি হত্যা মামলার সুষ্ঠু তদন্তের জন্য তার ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করে মামলার তদন্ত সংস্থা পিবিআই।

শুনানি শেষে ঢাকা মহানগর হাকিম আতিকুল ইসলাম সাতদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

পি‌বিআইয়ের তদন্ত চলাকালেই খা‌লেদ‌কে এই মামলায় গ্রেফতার দেখা‌নো-পূর্বক রিমা‌ন্ডের আবেদন করা হয়। আদালত গ্রেফতার দেখানো-পূর্বক সাতদিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।

মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, খিলগাঁও এলাকার বা‌সিন্দা ইসরাইল হো‌সেন ও তার ছে‌লে সায়মন ২০১৪ সা‌লের ৪ সে‌প্টেম্বর রাজধানী মা‌নি এক্স‌চেঞ্জ থে‌কে ৩৮ লাখ টাকা তোলেন। প‌রে গা‌ড়ি‌তে ক‌রে রাত সা‌ড়ে ৮টার দি‌কে খিলগাঁও থানাধীন তরাগাছ এলাকায় গা‌ড়ি থে‌কে নাম‌লে তিন-চার ছিনতাইকারী তা‌দের গু‌লি ক‌রে টাকার দু‌টি ব্যাগ নি‌য়ে পা‌লি‌য়ে যায়।

এ সময় গু‌লি‌বিদ্ধ বাবা-ছে‌লে‌কে স্থানীয় খিদমাহ হাসপাতা‌লে নি‌য়ে যাওয়া হয়। ওই‌দিন সেখানেই সায়ম‌নের মৃত্যু হয়। পরে ইসরাইল‌কে রাজধানীর বক্ষব্যাধি হাসপাতা‌লে (পঙ্গু) নেয়া হয়। এই আঘা‌তের জে‌রেই তিনি ২০১৬ সা‌লে মারা যান।

এ ঘটনায় সায়ম‌নের চাচা ম‌জিবুর রহমান ২০১৪ সা‌লের ৫ সে‌প্টেম্বর বাদী হ‌য়ে খিলগাঁও থানায় দণ্ড‌বি‌ধির ৩০২, ৩৯৪ ও ৩৪ ধারায় এক‌টি মামলা ক‌রেন। ওই মামলার আসামি খালেদ।

এ মামলায় ২০১৬ সা‌লে ডি‌বি তদন্ত প্র‌তি‌বেদন দা‌খিল ক‌রে। ত‌বে আদালত প্রতি‌বেদন গ্রহণ না ক‌রে স্বপ্র‌ণো‌দিত হ‌য়ে পি‌বিআইকে ‌মামলার অ‌ধিকতর তদ‌ন্তের নি‌র্দেশ দেন।

ক্যাসিনোকাণ্ডে কয়েক দফা রিমান্ডের পর কারাগারে ছিলেন খালেদ মাহমুদ ভূঁইয়া। গত ১৮ সেপ্টেম্বর তাকে তার গুলশানের বাসা থেকে অস্ত্রসহ আটক করে র‌্যাব। পরদিন তাকে গুলশান থানায় হস্তান্তর করা হয়। এরপর কয়েক দফা রিমান্ড শেষে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।

লকডাউন পরিস্থিতিতে পাঠকদের অবস্থা, সমস্যায় পড়া মানুষদের কথা সরকার, প্রশাসন এবং সকল খবরাখবর আমাদের সব পাঠকের সামনে তুলে ধরতে আমরা মনোনীত লেখাগুলি প্রকাশ করছি। ঘটনার বিবরণ, ছবি, ভিডিও আমাদের পাঠাতে ক্লিক করুন

স্থান, তারিখ ও কোন সময়ের ঘটনা তা জানাতে ভুলবেন না। আপনার নাম এবং ফোন নম্বর অবশ্যই লিখে পাঠাবেন। আপনার পাঠানো খবরটি বিবেচিত হলে তা প্রকাশ করা হবে আমাদের ওয়েবসাইটে।

ফেসবুকের মাধ্যমে মতামত জানানঃ